• আজ ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

যে শর্ত পূরণ হলে বার্সা ছেড়ে যাবেন না মেসি

| নিউজ রুম এডিটর ২:৩৩ পূর্বাহ্ণ | জুলাই ২৭, ২০২০ খেলাধুলা

বেশ কিছুদিন ধরেই গুঞ্জন চলছে আর্জেন্টাইন তারকা লিওনেল মেসি বার্সেলোনা ছাড়ছেন। তবে কী এই গুঞ্জন সত্যি হতে চলছে? ঠিক এক বছর পর চুক্তির মেয়াদ শেষ।

বার্সেলোনা চাচ্ছিল মেসির সঙ্গে চুক্তিটা নবায়ন করে নিতে। কিন্তু আর্জেন্টাইন তারকা চুক্তি নবায়ন করতে রাজি নন। তিনি বার্সাকে খালি হাতেই ফিরিয়ে দিচ্ছেন এই ব্যাপারে।

যে কারণে গুঞ্জন উঠে গেছে, বার্সা ছেড়ে যাবেন মেসি। এমনকি ইনস্টাগ্রামে ম্যানসিটিকে ফলো করা থেকেও গুঞ্জন উঠেছে, মেসি বার্সা ছেড়ে যাচ্ছেন।

নানা রকম গুঞ্জনের ডাল-পালা গজানোর মধ্যে আগেও একবার মুখ খুলেছিলেন বার্সা সভাপতি হোসে মারিয়া বার্তেম্যু। আবারও মুখ খুললেন এবং জানিয়ে দিলেন, মেসি বার্সা ছেড়ে কোথাও যাবে না বলে বিশ্বাস করি।

শুধু বিশ্বাস করাই নয়, বার্সা প্রেসিডেন্ট অনেকটা জোর দিয়েই বলেছেন, মেসি যে বার্সা ছাড়বেন না, তাতে কোনো সন্দেহ নেই। তবে, মেসি যে বার্সা ছাড়বেন না, সে জন্য একটি মাত্র শর্ত পূরণ করতে হবে। হোসে মারিয়া বার্তেম্যু জানিয়ে দিয়েছেন, সেই একটি শর্ত হচ্ছে, নেইমারকে যেভাবেই হোক ফিরিয়ে আনা।

নেইমার ফিরলেই বার্সা ছেড়ে আর কোথাও যাবেন না আর্জেন্টাইন এই মহাতারকা। খেলোয়াড় এক্সচেঞ্জের মাধ্যমেই সম্ভব নেইমারকে বার্সায় নিয়ে আসা।

বার্সেলোনা ভিত্তিক প্রভাবশালী ক্রীড়া দৈনিক মুন্ডো দেপোর্তিভোর সঙ্গে সাক্ষাৎকারে সভাপতি বার্তেম্যু বলেন, ‘মেসি অনেকবারই বলেছেন, তিনি বার্সাতে থেকেই অবসরে যাবেন। সুতরাং, তিনি যে ক্লাব ছেড়ে যাবেন না, এ বিষয়ে আমি কোনো সন্দেহই পোষণ করি না। তিনি অবশ্যই বার্সায় থাকবেন।’

বার্সেলোনা ভিত্তিক রেডিও স্টেশন ক্যাডেনা সার রিপোর্ট করেছে, চলতি জুলাই মাসেই হয়তো পরের চুক্তির বিসয়ে বার্সা কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলোচনা শুরু করবেন মেসি। ক্লাবের সঙ্গে যেটুকু হয়েছে, এটুকু শুধুই মান-অভিমান।

এ ব্যপারে মেসি সরাসরি মিডিয়ার সামনে ক্ষোভ প্রকাশ করেন, স্পোর্টিং ডিরেক্টর এরিক আবিদাল যখন গত জানুয়ারিতে মন্তব্য করে বসেন যে, খেলোয়াড়দের কারণেই কোচ আর্নেস্তো ভালভার্দেকে বিদায় নিতে হয়েছিল।

এছাড়া গত মার্চে করোনা ভাইরাসের কারণে সৃষ্ট পরিস্থিতিতে খেলোয়াড়দের পারিশ্রমিক কমানোর যে প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল, সেটারও সরাসরি বিরোধীতা করেছিলেন মেসি এবং প্রকাশ্যেই খেলোয়াড়দের পক্ষ নিয়ে দাঁড়ান।

এরপর লিগ শুরু হলে বার্সা একের পর এক পয়েন্ট হারাতে থাকে এবং লা লিগা শিরোপাও হারিয়ে ফেলে। যে কারণে বার্সার কঠোর সমালোচনা করেন খোদ মেসি নিজেও।

অর্থনৈতিক বিধি-বাধকতাসহ নানা বিষয় চিন্তা করেই বার্সা প্রেসিডেন্ট নেইমারকে পিএসজি থেকে ফিরিয়ে আনার সম্ভাবনা নিয়ে কথা বলেছেন। তিনি বলেন, ‘এখন আমাদের সিদ্ধান্ত নেওয়ার সময় যে, নেইমারকে ফিরিয়ে আনার। যদি তারা (পিএসজি) খেলোয়াড় এক্সচেঞ্জের মধ্যে না আসে, তাহলে বিষয়টা আমাদের জন্য খুবই কঠিন হয়ে যাবে।’

এছাড়া গোলরক্ষক মার্ক অ্যান্ডার টার স্টেগানের চুক্তির বিষয়েও কথা বলেন বার্সা সভাপতি। ২০২২ সালে চুক্তি শেষ হবে এই জার্মান গোলরক্ষকের। তবে বিষয়টিতে বার্সা সভাপতি বলেন, আমরা শুধু গোলরক্ষক হিসেবে নয়, স্টেগানের চুক্তির মেয়াদ বাড়াব তার ব্যক্তিত্ব দেখেও।

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন পিপলস নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - feature.peoples@gmail.com