সংবাদ শিরোনাম
 প্রথমে বিশ্ববিদ্যালয় সবার শেষে প্রাথমিক বিদ্যালয় খুলবে | করোনা টেস্ট করাতে গিয়ে চার বছর আগে হারিয়ে যাওয়া ছেলেকে খুঁজে পেল মা! | পাকিস্তানকে মদিনা শরিফের আদর্শ অনুসরণে মহৎ রাষ্ট্র বানাবো: ইমরান খান | মোদির হাতেই রামমন্দিরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন, আমন্ত্রিত সব মুখ্যমন্ত্রী | জুমার নামাজের মধ্যদিয়ে মসজিদ হিসেবে খুলছে ‘আয়া সোফিয়া’ | জায়নামাজ চাইলেন সাবরিনা, সঙ্গে কিছু বড় কাপড় | টিউশনের নাশতা খেয়েই দিন পার করা মেয়েটি এখন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক | তুরস্কে আজান দেয়া বন্ধ করতে পারবে না কেউ: এরদোয়ান | রিমান্ডে স্বামী-স্ত্রীর কাদা ছোড়াছুড়ি | পরিবারের পছন্দের মেয়ে আর প্রেমিকা, দুজনকেই একসঙ্গে বিয়ে করলেন যুবক |
  • আজ ২২শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

মালয়েশিয়ায় মোস্ট ওয়ান্টেড মামলায় গ্রেফতার রায়হানের পরিবারে উৎকণ্ঠা

Avatar | রুবাইয়াত ১০:২৭ পূর্বাহ্ণ | জুলাই ২৯, ২০২০ ধর্ম

মালয়েশিয়ায় মোস্ট ওয়ান্টেড মামলায় গ্রেফতার রায়হানের পরিবারে উৎকণ্ঠা

মালয়েশিয়ায় মোস্ট ওয়ান্টেড মামলায় গ্রেফতার রায়হানের পরিবারে উৎকণ্ঠা

মালয়েশিয়ায় মোস্ট ওয়ান্টেড মামলায় গ্রেফতার হওয়া নারায়ণগঞ্জের রায়হান কবিরের পরিবার উৎকণ্ঠায় দিন কাটাচ্ছে।

প্রবাসী বাংলাদেশিদের দুর্দশার কথা মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক টেলিভিশন আল জাজিরায় বলায় মালয়েশিয়া সরকার তার বিরুদ্ধে এ ব্যবস্থা নেয়।

এ অবস্থায় তাকে দেশে ফিরিয়ে আনার দাবি জানিয়েছেন স্বজন, রায়হানের সহপাঠী ও এলাকাবাসী।

ছেলে ফিরে আসবে এই আশায় কিছুক্ষণ পর পর বাড়ির গেটে দাঁড়িয়ে রাস্তার দিকে চেয়ে থাকছেন মা রাশিদা বেগম।

আদৌ ছেলেকে ফিরে পাবেন কিনা সেই আশঙ্কা আর হতাশায় অসুস্থ হয়ে পড়েছেন তিনি।

অজানা আতংকে বারবার জ্ঞান হারিয়ে ফেলছেন এই মা।

গত ২৩ জুলাই ছেলের সাথে শেষ কথোপকথনের কথাই বারবার সবার সাথে বলছেন। ছেলেকে দেশে ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে সরকারের কাছে আকুল আবেদন জানান তিনি।

রায়হানের মা রাশিদা বেগম বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমার একটাই অনুরোধ আমার ছেলে আমার কাছে সুস্থভাবে ফিরে আসুক।’

একই আকুতি পরিবারের অন্যান্য স্বজনদেরও।

রায়হানের ছোট বোন মেহেরুন নেসা বলেন, ‘আমার ভাইকে শুধু সুস্থভাবে নয়, সম্মানের সাথে দেশে ফিরিয়ে আনা হোক।’

রায়হানের বাবা মোহাম্মদ শাহ আলম বলেন, ‘আমার ছেলে তো নিজের জন্য কিছু করেনি, সবার জন্য করতে চেয়েছে।’

‘লকড আপ ইন মালয়েশিয়া লকডডাউন’ শিরোনামে

গত ৩ জুলাই কাতারভিত্তিক টেলিভিশন চ্যানেল আল-জাজিরায় প্রচারিত এক প্রতিবেদনে মালয়েশিয়ায় করোনা পরিস্থিতিতে অবৈধ অভিবাসীদের

উপর নির্যাতনের ব্যাপারে অভিমত দেন সেখানকার প্রবাসী বাংলাদেশী নারায়ণগঞ্জের রায়হান কবির।
এটি তার জন্য কাল হয়ে যায়।

এ অপরাধে ওয়ার্ক পারমিট বাতিলসহ রায়হানকে মোস্ট ওয়ান্টেড ঘোষণা করে মালয়েশিয়ার সরকার।

২৪ জুলাই রায়হান গ্রেফতার করে। তার সহপাঠী ও এলাকাবাসী তাকে দেশে ফিরিয়ে আনার আবেদন জানান।

২০১৪ সালে নারায়ণগঞ্জ শহরের সরকারি তোলারাম কলেজ থেকে এইচএসসি পাশের পর উচ্চশিক্ষার জন্য বৈধভাবে মালেশিয়া যান রায়হান কবির।

২০১৭ সালে কুয়ালামপুর টিএমসি ইউনিভার্সিটি থেকে বিবিএ কোর্স শেষে ভর্তি হন এমবিএতে।

লেখাপড়ার খরচ চালাতে কাজ করছিলেন সেখানকার একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে।