• আজ ১লা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

পবিত্র মক্কা এবং মদিনায় দীর্ঘ ২ বছর পর জমজমের পানি সরবরাহ পুনরায় চালু

| নিউজ রুম এডিটর ৪:২৮ অপরাহ্ণ | সেপ্টেম্বর ১৭, ২০২১ আফগানিস্তান, লিড নিউজ, হেডার স্ক্রল

বৈশ্বিক করোনা মহামারির কারণে পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনায় দীর্ঘ প্রায় ২ বছর যাবত জারে করে জমজমের পানি সরবরাহ বন্ধ ছিল। দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পরে অবশেষে পবিত্র দুই মসজিদে আবারও জারে জমজমের পানি সরবরাহ শুরু করেছে হারামাইন কর্তৃপক্ষ।

হারামাইন ডটইনফো এর প্রতিবেদনের বরাত জানা যায় যে, গত মঙ্গলবার থেকে মদিনার মসজিদে নববি থেকে জারের মাধ্যমে জমজমের পানি সরবরাহ শুরু করা হয়েছে। প্রতিদিন ৬০০ জারের মাধ্যমে ঠাণ্ডা ও গরম জমজমের পানি সরবরাহ করছে সেখানকার নিয়োজিত সেবকরা।

গতকাল থেকে পবিত্র কাবা শরিফেও ২৫০ জারের মাধ্যমে জমজমের পানি সরবরাহ শুরু করেছে। জারে পানি সরবারাহের আগে জমজমের পানিও পরীক্ষা-নিরীক্ষা করছে হারামাইন কর্তৃপক্ষ। প্রতিদিন দিন-রাত শিফটিং ডিউটির মাধ্যমে ১০৭৭ জন দক্ষকর্মী পানি সরবরাহ কাজে নিয়োজিত রয়েছেন ।

সুস্বাস্থ্য ও নিরাপত্তার স্বার্থে পানি সরবরাহকারী কর্মীদের সরিয়ে নেওয়া হয়। এ সময় জমজমের পানি বোতলজাত করে দুই পবিত্র মসজিদে সরবরাহ করা হয়। দীর্ঘ প্রায় ২ বছর পর পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনার মসজিদে নববির ভেতরে জারের মাধ্যমে জমজমের গরম ও ঠান্ডা পানি সরবরাহ শুরু করা হয়।

ইতিমধ্যে প্রতিদিনই পবিত্র নগরী মক্কা-মদিনায় ওমরাহ ও জিয়ারতকারী উপস্থিতিও বেড়ে চলছে। তাই জিয়ারতকারীদের সুবিধার্থে বোতলের পরিবর্তে সারি সারি সাজানো জারের মাধ্যমে জমজমের পানি সরবরাহ শুরু হয়েছে।

হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মুখপত্র হানি বিন হুসনি হায়দার জানান,পবিত্র নগরী মক্কায় ওমরাহ পালনকারীদের সংখ্যা বাড়িয়ে প্রতিদিন ৭০ হাজার করা হয়েছে। আর ওমরাহ ও জিয়ারতকারীদের জন্য জমজমের পানি সরবরাহও বাড়ানো হয়েছে। প্রতিদিন ৩ লাখ বোতলে জমজমের পানি সরবরাহ করা হবে বলে তিনি জানান।

পিএন/জেটএস


করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন পিপলস নিউজ‘এ । আজই পাঠিয়ে দিন feature.peoples@gmail.com মেইলে