• আজ ২রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রাতে আলো জ্বেলে না নিভিয়ে ঘুমাবেন?

| নিউজ রুম এডিটর ৬:৪৯ অপরাহ্ণ | মার্চ ২৫, ২০২২ স্বাস্থ্য

আমরা অনেকেই রাতে ঘুমাতে মৃদু আলো ব্যবহার করে থাকি। অন্ধকারে ঘুমাতে সমস্যা হলে অনেকেই এ ধরনের বাতি ব্যবহার করে থাকেন। কিন্তু এটা স্বাস্থ্যের জন্য কতটা ঝুঁকিপূর্ণ তা কি জানেন?

আমেরিকার ইলিনোইসেক নর্থওয়েস্টার্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিনবার্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অব মেডিসিনের বিজ্ঞানীরা এই বিষয়ে এমন তথ্য প্রকাশ্যে এনেছেন, যা শুনলে আপনি রীতিমতো অবাক হবেন। মনে মনে ভাবতে পারেন, এই সামান্য ব্যাপারে আবার কী এমন ক্ষতি হবে? আর এ কারণেই বিস্তারিত ব্যাখ্যা দিয়েছেন গবেষকরা।

তারা বলছেন, পৃথিবীতে বেশ কিছু মানুষ রয়েছে, যারা ভয়ের কারণে বা অন্য কোনো অজানা কারণে আলো বন্ধ করে ঘুমাতে পারেন না। শিশুদের মধ্যে এই সমস্যাটা বেশি পরিলক্ষিত হয়। তবে এ ধরনের অভ্যাস থাকলে আপনার ধীরে ধীরে এই অভ্যাস থেকে বেরিয়ে আসা উচিত বলে মনে করছেন তারা।

আমেরিকার ইলিনোইসেক নর্থওয়েস্টার্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিনবার্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অব মেডিসিনের বিজ্ঞানীদের করা ওই সমীক্ষায় দাবি করা হয়েছে, রাতে আলো জ্বেলে ঘুমানোর অভ্যাসে স্বাভাবিকের তুলনায় হৃদ্‌স্পন্দন বেশি থাকে। এ কারণে আপনার যদি এই অভ্যাস থেকে থাকে, তবে তাতে আপনার বাড়তে পারে হার্টের সমস্যা ও ডায়াবেটিসের ঝুঁকি।

রাতে মৃদু আলোর পাশাপাশি মধ্যম মানের বাতিতেও অনেকে ঘুমিয়ে থাকেন। এ বিষয়ে তথ্য সংগ্রহ করা হলে গবেষকরা দেখেন, ২০ জনের মধ্যে ১০ জনেরই শরীরের উপস্থিত ইনসুলিন বেড়ে নানা ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছেন। এ ক্ষেত্রে তারা বলেন, মৃদু বা মধ্যম আলোর ওপর হৃদ্‌স্পন্দন পরিবর্তনের মাত্রা অনেকটা নির্ভর করে।

গবেষণায় দেখা গেছে, স্বাভাবিকের তুলনায় মৃদু আলোতে ঘুমানো ব্যক্তির হৃদ্‌স্পন্দন বেশি। এই হৃদ্‌স্পন্দন আরও বেড়ে যায় মধ্যম মানের আলোয় ঘুমানোর অভ্যাস থাকলে। কেন এমনটা হয়–এমন প্রশ্নে বিশেষজ্ঞরা খুঁজে পেয়েছেন একটি বিশেষ তথ্য। তারা বলেন, ঘুমানোর পর আমাদের শরীরে স্বয়ংক্রিয় নার্ভ পদ্ধতি কাজ করতে থাকে। কিন্তু সামান্য আলোয় এ কাজের ব্যাঘাত ঘটে অনেকটাই।

এ বিষয়ে ফিনবার্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অব মেডিসিনের চিকিৎসক ড. ফাইলিস জি জানান, আলো জ্বেলে ঘুমালে চোখের সামনে সবকিছুই দৃশ্যমান থাকে, যা শরীরের ওপর ধীরে ধীরে বিরূপ প্রভাব ফেলতে শুরু করে। তাই এর ক্ষতিকর প্রভাব থেকে নিজেকে সুরক্ষিত রাখতে হালকা হলুদ আলোয় ঘুমানোর অভ্যাস করতে পারেন। ধীরে ধীরে তাতে অভ্যস্ত হয়ে উঠলে আলোহীনভাবেই রাতে ঘুমানোর অভ্যাস গড়ে তুলুন।

সূত্র: নিউজ ১৮ বাংলা