• আজ ২রা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

অপারেশন থিয়েটার থেকে ধরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে চিকিৎসকদের!

| নিউজ রুম এডিটর ১০:০৬ পূর্বাহ্ণ | এপ্রিল ২০, ২০২২ আন্তর্জাতিক, লিড নিউজ

মিয়ানমারে জান্তাবিরোধী চিকিৎসকদের গ্রেফতারে ব্যাপক আকারে অভিযান শুরু করেছে দেশটির সেনাবাহিনী। গ্রেফতার এড়াতে অনেক চিকিৎসক আত্মগোপন করায় ভেঙে পড়েছে মিয়ানমারের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা।

গত বছরের ১ ফেব্রুয়ারি অভ্যুত্থানের মাধ্যমে মিয়ানমারের নির্বাচিত সরকারকে উৎখাত করে ক্ষমতা দখল করে দেশটির সেনাবাহিনী। কর্মজীবীদের মধ্যে সবার আগে জান্তা সরকারের বিরুদ্ধে রাজপথে নামেন চিকিৎসকরা। যেসব চিকিৎসক ওই সময় সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছিলেন, তাদের এখন খুঁজে খুঁজে গ্রেফতার করা হচ্ছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে মার্কিন সংবাদমাধ্যম নিউইয়র্ক টাইমস।

গত কয়েক সপ্তাহ ধরে চিকিৎসকদের বিরুদ্ধে ধরপাকড় শুরু করেছে মিয়ানমার সেনাবাহিনী। তাদের ঘরবাড়ি ও হাসপাতালে চালানো হচ্ছে তল্লাশি অভিযান। এমনকি অপারেশন থিয়েটারে দায়িত্ব পালনের সময়ও চিকিৎসকদের ধরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। খবর আল জাজিরার।

গ্রেফতারের পাশাপাশি তাদের নগদ অর্থ ও সম্পদ জব্দের অভিযোগ পাওয়া গেছে। হাসপাতাল বন্ধ করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে বড় অঙ্কের নগদ অর্থ দাবি করছে সেনাবাহিনী।

এদিকে বিভিন্ন বিদ্রোহী বাহিনীর আহত যোদ্ধাদের খোঁজেও হাসপাতালগুলোতে তল্লাশি চালাচ্ছে মিয়ানমার সেনাবাহিনী। যেসব বেসরকারি হাসপাতাল জান্তা সরকারের বিরোধিতা করা চিকিৎসকদের নিয়োগ দিয়েছে, সেগুলো বন্ধ করে দেওয়ার হুমকিও দেওয়া হচ্ছে।

অভ্যুত্থানের পর মিয়ানমারে এখন পর্যন্ত ১৪০ চিকিৎসককে গ্রেফতার করা হয়েছে। যাদের মধ্যে ৮৯ জন বর্তমানে কারাগারে আছেন। হত্যা করা হয়েছে অন্তত ৩০ জন চিকিৎসককে। আর সম্প্রতি নির্বিচারে গ্রেফতারের কারণে মিয়ানমারে তীব্র চিকিৎসক সংকট দেখা দিয়েছে, ভেঙ্গে পড়েছে স্বাস্থ্য ব্যবস্থা।

দেশটিতে বর্তমানে প্রায় ১০ লাখ শিশু নিয়মিত টিকা থেকে বঞ্চিত। ফলে হাম বা এ ধরনের অন্যান্য রোগে শিশু মৃত্যুর ঝুঁকি অনেক বেড়ে গেছে।