• আজ ৫ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বড় পরাজয়ে বাদ পড়ার শঙ্কায় শ্রীলংকা

| নিউজ রুম এডিটর ৫:৫৪ অপরাহ্ণ | অক্টোবর ২৯, ২০২২ ক্রিকেট, খেলাধুলা

ব্যাট হাতে নেমে শুরুতেই ধাক্কা কিউই শিবিরে। শ্রীলংকার বোলিং তোপে ১৫ রানেই ৩ উইকেট হারিয়ে বসে নিউজিল্যান্ড।

কিন্তু এরপরই বিধ্বংসী ইনিংস খেলেন গ্লেন ফিলিপস। তার আগ্রাসী সেঞ্চুরিতে ভর করে ৭ উইকেটে ১৬৭ রান জমা করে কেইন উইলিয়ামসনের দল।

১৬৮ রানের তাড়াই একইরকম বিপত্তিতে পড়ে শ্রীলংকা। দলীয় সংগ্রহ ৮ রান নিতেই ৩ উইকেট হাওয়া লঙ্কানদের।

কিন্তু ফিলিপসের মতো লঙ্কানদের হয়ে কেউ দাঁড়াতে পারেনি। ভানুকা রাজপাকসে ও অধিনায়ক দাসুন শানাকার যথাক্রমে ৩৪ ও ৩৫ রানের ইনিংসে ভর করে কোনোমতে একশ পার করতে পেরেছে শ্রীলংকা।

ফলে ৬৫ রানের বিশাল ব্যবধানে হেরে গেছে দাসুন শানাকার দল।

যে দলই জিতবে, গ্রুপ ওয়ানের শীর্ষে উঠবে – এমন সমীকরণে শনিবার দুপুরে সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে মুখোমুখি হয় নিউজিল্যান্ড ও শ্রীলংকা।

কিন্তু এমন বড় পরাজয়ে টুর্নামেন্ট থেকে বাদ পড়ার শঙ্কায় এখন দাসুন শানাকার দল।

শ্রীলংকার ইনিংসে ধসিয়ে দেয়ার নায়ক কিউই পেসার ট্রেন্ট বোল্ট। ৪ ওভারে মাত্র ১৩ রান দিয়ে ৪ উইকেট শিকার করেছেন এ পেসার।

বাকিরাও কম যাননি। সমান ২১ রান দিয়ে দুটি করে উইকেট শিকার করেছেন মিচেল সান্টনার ও ইশ শোধি।

এক উইকেট পেলেও ৪ ওভারে মাত্র ১২ রান দিয়েছেন পেসার টিম সাউদি। ৩৫ রান দিয়ে একটি উইকেট নিয়েছেন ফার্গুসন।

মোটা দাগে কিউই বোলারদের সামনে রাজাপাকসে আর শানাকা ছাড়া বাকিরা কেউই দাঁড়াতে পারেনি। রানের খাতাই খুলতে পারেননি তিন ব্যাটার – ওপেনার পাথুম নিশাঙ্কা, টপঅর্ডার ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা ও টেলএন্ডার মাহেশ থিকসানা।

আর বাকিরা রান পেলেও দুই অংকের ঘরেই পৌঁছুতে পারেননি।

১৯.২ ওভারে তথা ৪ বল বাকি থাকতেই ১০২ রানে গুটিয়ে গেছে লঙ্কানদের ইনিংস।

এর আগে ব্যাট হাতে কিউই ওপেনার ফিন অ্যালেনকে ১ রানে বোল্ড করে দেন থিকসানা। এরপরেই আরেক ওপেনার ডেভন কনওয়েকে ২ রানে ফিরিয়ে দেন ধনাঞ্জয়া। দলীয় ৭ রানে ২ ওপেনারকে হারান পর ৮ রানের ব্যবধানে অধিনায়কের উইকেট হারায় ব্ল্যাকক্যাপসরা।

রাজিথাকে উইকেট দিয়ে ১৩ বলে ৮ রানে ফেরেন কেইন উইলিয়ামসন। ফলে বিপদে পড়ে দলটি।

দলটিকে এরপর খাদের কিনারা থেকে টেনে তুলেছেন গ্লেন ফিলিপস ও ড্যারিল মিচেল। চতুর্থ উইকেটে দুজন মিলে গড়েছেন ৮৪ রানের জুটি।

২৪ বলে ২২ রান করে মিচেল ফিরলেও রানের চাকা থামতে দেননি ফিলিপস। ওপর প্রান্ত থেকে অবশ্য সঙ্গ দিতে পারেননি কেউই। ৪ ছয় ও ১০ চারে ১০৪ রানে করে শেষ ওভারে আউট হয়ে ফেরেন ফিলিপস। শেষইকে স্যান্টনারের অপরাজিত ১১ রানে ১৬৭ তে থামে নিউজিল্যান্ডের ইনিংস।

প্রথম ইনিংসে লঙ্কানদের সেরা বোলার রাজিথা। ৪ ওভার হাত ঘুরিয়ে ২৩ রানে ২ উইকেট নিয়েছেন তিনি। একটি করে উইকেট পেয়েছেন ধনঞ্জয়া, থিকশানা, হাসারাঙ্গা ও লাহিরু কুমারা।