• আজ ২রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দিনাজপুরে ইউসিবি‘র উদ্যোগে দিনব্যাপী কৃষি উদ্যোক্তা দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত

| নিউজ রুম এডিটর ৪:৩১ অপরাহ্ণ | আগস্ট ২১, ২০২৩ সারাদেশ


রফিকুল ইসলাম ফুলাল দিনাজপুর প্রতিনিধি :
‘ভরসার নতুন জানালা‘শ্লোগান নিয়ে কৃষির সমৃদ্ধিতে ইউসিবি এগ্রো সিএসআর প্রকল্প ২০২৩‘এর উদ্যোগে দিনাজপুরে দিনব্যাপী কৃষি উদ্যোক্তা দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনা অনুযায়ী ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক পিএলসি (ইউসিবি) সামাজিক দায়িত্বের অংশ হিসেবে কৃষিখাতে সহায়তা প্রদানের জন্য এগ্রো-সিএসআর প্রকল্প ২০২৩ ‘ভরসার নতুন জানালা’-র উদ্যোগে ২১ আগস্ট সোমবার সকালে দিনাজপুর সদরের ব্র্যাক লার্নিং সেন্টারে কৃষি উদ্যোক্তা দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়। দিনব্যাপী অনুষ্ঠিত এই প্রশিক্ষণে দিনাজপুর জেলার ১৩টি উপজেলার প্রায় ৩৭০ জন উদ্যোক্তা অংশগ্রহন করেন।

প্রশিক্ষণের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক পিএলসির উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক এটিএম তাহমিদুজ্জামান। এছাড়াও অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ টেলিভিশনের মাটিও মানুষ অনুষ্ঠানের উপস্থাপক কৃষি-গবেষক রেজাউল করিম সিদ্দিক, বিশিষ্ট সাংবাদিক বেসরকারি টেলিভিশন ডিবিসি নিউজের সম্পাদক প্রণব সাহা, ইউসিবির ইভিপি আবুল কালাম আজাদ, এসএমসই ব্যাংকিংয়ের প্রধান মো মহসিনুর রহমান।

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, বাণিজ্যিক কৃষির বিকাশের লক্ষ্যে সারাদেশে কৃষি উদ্যোক্তাদের দক্ষতা বৃদ্ধি ও সহজ শর্তে সহায়তা প্রদান নিশ্চিত করতে হবে। এছাড়া কৃষিখাতে আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়াতে কৃষকের দোরগোড়ায় সহায়তা পৌঁছাতে হবে। ‘ভরসার নতুন জানালা’ প্রকল্পের মাধ্যমে ইউসিবি সেই কাজটিই করার চেষ্টা করছে।

একই দিন গাইবান্ধার এসকেএস ইন রিসোর্টে গাইবান্ধা জেলার ৭টি উপজেলার প্রায় ২১৫ জন কৃষককে নিয়ে কৃষি উদ্যোক্তা দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়। প্রশিক্ষণে সহজ শর্তের কৃষি ঋণ বিতরণ ও কৃষি প্রণোদনা সহায়তা প্রদানের পথপদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করা হয়। এ ছাড়া কৃষি উদ্যোক্তা এবং আর্থিক প্রতিষ্ঠানের মধ্যে বিরাজমান ‘দুরত্ব’ কমিয়ে আনা, উন্নত ও সমৃদ্ধ কৃষির বিকাশে সহজ শর্তে ও মানবিক অর্থায়নের সুযোগ সম্প্রসারিত করার উপায় নিয়েও আলোচনা করা হয়।

উল্লেখ্য, ইউসিবির কৃষি-সহায়তা প্রকল্পের আওতায়-সঠিক কৃষি ও খাদ্য উদ্যোক্তা চিহ্নিত করে চাহিদা অনুযায়ী প্রশিক্ষণ প্রদান, ৬৪ জেলার প্রায় সকল উপজেলা থেকে কৃষি, মৎস্য ও পশুপালনের সঙ্গে যুক্ত ১৩ হাজার কৃষি উদ্যোক্তার দক্ষতা বৃদ্ধির উদ্যোগ গ্রহণ, জলবায়ু-সহায়ক শস্য উৎপাদন ও কৃষি যান্ত্রিকীকরণ সুবিধা সম্প্রসারণে ভূমিকা পালন, খাদ্য সংরক্ষণ ও প্রক্রিয়াজাতকরণে সহায়তা প্রদানসহ বেশ কিছু কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হবে। এই প্রকল্পের মূল লক্ষ্য হলো দেশের খাদ্য নিরাপত্তা ও উন্নত পুষ্টিমান নিশ্চিত করার পাশাপাশি জলবায়ু সহিষ্ণু টেকসই কৃষির প্রসার ঘটানো। ইউসিবির এই প্রকল্প বাস্তবায়নে সহযোগী হিসেবে কাজ করছেন বিসেফ ফাউন্ডেশন। এসময় অনুষ্ঠানে ব্যাংকের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।