• আজ ৯ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

স্ত্রী হত্যার দায়ে নাটোরে স্বামীর যাবজ্জীবন কারাদন্ড

| নিউজ রুম এডিটর ৭:৩৫ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ২৬, ২০২২ নাটোর, সারাদেশ

জেলা প্রতিনিধি, নাটোরঃ নাটোরের বড়াইগ্রামে চাম্পা খাতুন (২৫) নামে এক গৃহবধূকে হত্যার দায়ে তার স্বামী শাহীন মন্ডলকে যাবজ্জীবন কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছে আদালত। মঙ্গলবার দুপুরে নাটোর জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক শরীফ উদ্দিন এই আদেশ দেন। দন্ডপ্রাপ্ত শাহীন মন্ডল উপজেলার তেলো পশ্চিমপাড়া এলাকার রইচ উদ্দিন মন্ডলের ছেলে।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, বড়াইগ্রাম উপজেলার বনপাড়া কালিকাপুর গ্রামের আফছার মিয়াজীর মেয়ে চাম্পা খাতুনের সাথে ২০১৫ সালের জুলাই মাসে বিবাহ হয় একই উপজেলার তেলো পশ্চিমপাড়া মহল্লার রইচ উদ্দিন মন্ডলের ছেলে শাহীন মন্ডলের। বিয়ের পর থেকেই যৌতুকের জন্য চাপ দিতে থাকে স্বামী শাহীন মন্ডল ও তার পরিবারের সদস্যরা। স্ত্রী চাম্পা খাতুন তাদের চাহিদা মাফিক যৌতুক তার বাবার কাছ থেকে এনে দিতে অস্বীকার করে। এ নিয়ে তাদের মধ্যে প্রায়ই বিরোধ সহ মারধরের ঘটনা ঘটতো। এর এক পর্যায়ে ২০১৬ সালের ২১ জানুয়ারী সকালে মেয়েকে মেরে ঘরের মধ্যে রেখে দিয়েছে বলে মেয়ের প্রতিবেশীদের মাধ্যমে সংবাদ পায় চাম্পার বাবা আফছার মিয়াজী। সাথে সাথে মেয়ের বাড়ীতে গিয়ে ঘরের মধ্যে মেয়ের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে তারা।

এ ঘটনায় নিহত চাম্পা খাতুনের বাবা বাদী হয়ে মেয়ের স্বামী শাহীন মন্ডল ও তার শ্বশুড়, শ্বাশুড়ীকে অভিযুক্ত করে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার স্বাক্ষ্য প্রমাণ গ্রহণ শেষে আদালতের বিচারক মঙ্গলবার শাহীন মন্ডলকে যাবজ্জীবন কারাদন্ডের আদেশ দেন। বিচারক শাহীন মন্ডলকে আরো ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। অনাদায়ে আরো ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।

উল্লেখ্য, চাম্পা শাহীন মন্ডলের দ্বিতীয় স্ত্রী। শাহীন মন্ডল তার প্রথম স্ত্রীকেও একই কায়দায় হত্যা করেছে এবং সেই মামলার এখনো বিচারাধীন রয়েছে বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে।